ট্রেন্ডঃ আরেক পর্ব

বাধনের একটা বিরক্তিকর অভ্যাস ছিলো, প্রতি শুক্রবার সে চাদর কাঁথা কম্বল সবকিছু নিয়ে ব্লকে রোদে দিত। এর জন্য শীত সকালের মিষ্টি রোদ জীবনেও রুমে ঢুকত না। আমরা ডর্মবাসিরা বিরক্ত হয়ে ডিসিশন নিলাম, ঠিক আছে, প্রতি বার সে কাথা কম্বল রোদে দেয়, এইবার ওরও রোদ পোহানোর সময় আসছে…। সেই মোতাবেক এক মিষ্টি শুক্রবার সকালে আমরা সবাই বাধনকে ধরপাকড় করে টানতে টানতে ব্লকে নিয়ে গেলাম আর বেল্ট,দড়ি যা কিছু ছিল তাই দিয়ে ওকে বেন্ধে রেখে মজা দেখতে থাকলাম(গড়াগড়ি) (গড়াগড়ি) , আর সে তারস্বরে চেচাতে থাকলো। আমি অনেকবার ওকে ধমক দিসি, বাধন চুপ থাক, আবুল হোসেন স্যার কিন্তু ডিএম, এক্ষুনি চলে আসবে। সে শুনে নাই। ।…

…ফল স্বরূপ একটু পর আবুল হোসেন স্যারের আগমন।আমরা ওকে ছেড়ে দিলাম।এখন ওর Second doze(এটা আমরা কেউ plan করিনাই)স্যার এসেই বললেন,” বাধন আমি তোমার চিৎকার শুনলাম”।স্যারও হাসছিল  আর উনি ওকে নিজের মেয়ের মত আদর করতেন ,তাই ওকে আরেকটু টাইট দেয়ার জন্য বললাম,

“স্যার আমি ওকে অনেকবার বলসি চিৎকার করিসনা স্যার আসবে(এরপর ওর দিকে তাকায়ে)কি বলসিনা?তুই শুধু বল বলসি কিনা?”  

বাধন মুখটাকে একই সাথে করুণ এবং ক্রোধান্বিত করে জবাব দিলো, হু।

স্যারঃ তাই নাকি?

জ়ি স্যার

স্যারঃ তারপরও তুমি চিৎকার করলে?

…জি স্যার…:D

তারপর যা বুঝার…বুঝে নেন।

(এই মুহুর্তে বাধন আমার পাশে চিল্লা পাল্লা এবং লাফালাফি করছে, ঠিক সেই দিনের মত :D)

 

১,৮৬৮ বার দেখা হয়েছে

৩৩ টি মন্তব্য : “ট্রেন্ডঃ আরেক পর্ব”

  1. জিহাদ (৯৯-০৫)

    @নাবিলা- লেখা মডারেশনের জন্য জমা দিতে চাইলে লেখা শেষে এডিটর এর ডান পাশের publish status অপশন থেকে pending reviw option টি সিলেক্ট করে সেভ করতে হবে। ড্রাফট হিসেবে সেভ করলে ধরে নেয়া হবে লেখা সম্পূর্ণ হয়নি।


    সাতেও নাই, পাঁচেও নাই

    জবাব দিন
  2. রায়হান আবীর (৯৯-০৫)

    অনেক মজার মজার ট্রেন্ড শেখা গেল...রোদে শুকানো, রেলিঙ্গে লটকানো...

    আমি এখন কলেজে থাকলে একটারে রোদে শুকাইতে দিতাম...আফসোস এই সুন্দর সুন্দর আইডিয়া গুলা খালি আমাদের আফারাই জানে... ;)

    জবাব দিন

মন্তব্য করুন

দয়া করে বাংলায় মন্তব্য করুন। ইংরেজীতে প্রদানকৃত মন্তব্য প্রকাশ অথবা প্রদর্শনের নিশ্চয়তা আপনাকে দেয়া হচ্ছেনা।

:) :( :P :D :)) :(( =)) :clap: ;) B-) :-? :grr: :boss: :shy: x-( more »

ফেসবুক মন্তব্য